শুক্রবার, ৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৩ খ্রীষ্টাব্দ | ২১ মাঘ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

শ্রীমঙ্গলে নাসির গ্রুপের বিক্রয়কর্মীর সাহসিকতায় প্রতারক চক্রের এক সদস্য হাতেনাতে ধৃত



20994096_1954846131460425_5651661690383716794_n

ঝলক দত্ত

শ্রীমঙ্গলে বিভিন্ন লোকজনের কাছ থেকে প্রতারণার মাধ্যমে প্রায় ০৪(চার) লক্ষ টাকা নিয়ে পালিয়ে যাওয়া প্রতারক চক্রের সদস্য কাশেম কে গত বৃহস্পতিবার আটক করেছেন প্রতারণার শিকার হওয়া সুমন আলী নামে এক যুবক। কাশেম’র বাড়ি হবিগঞ্জ জেলার বানিয়াচং থানাধীন। সে শ্রীমঙ্গলে ভাড়া করে সিএনজি চালায়। শ্রীমঙ্গলের কলেজ রোডে দাঁড়িয়ে থাকা অবস্থায় হঠাৎ প্রতারক ও দালাল চক্রের সদস্য কাশেমকে দেখে সুমন আলীর সাহসী ও বুদ্ধিদীপ্ত কৌশলে চলন্ত সিএনজি অটো থেকে হাতেনাতে ধরে ফেলে। এ সময় বাকিরা পালিয়ে যায়।
অভিযোগকারীরা জানায়, এ চক্রটি শ্রীমঙ্গলে ব্যাংক গুলোর সামনে সিএনজি নিয়ে আগে থেকে ব্যাংকের গ্রাহকদের টার্গেট করে বসে থাকে। বিভিন্ন কৌশল করে দাঁড় করিয়ে কাউকে ঠিকানা, ডলার ভাঙ্গানোর ঠিকানা এসব বলে ভিকটিমদের ভুলিয়ে টাকা লুটে অটো সিএনজি যোগে পালিয়ে যায়।
পূবালী ব্যাংক এর নীচ থেকে নাসির গ্রুপের বিক্রয়কর্মী সুমন ব্যাংকে টাকা জমা দিতে আসলে প্রতারক চক্রের খপ্পরে পড়ে, তার কাছ থেকে ডলার ভাঙ্গাবার নাম করে সাহায্য প্রার্থনা করে প্রতারণা করে কোম্পানীর ১২ হাজার টাকা নিয়ে চম্পট দেয়। শুধু তাই নয়, বিগত ০৯ আগষ্ট দুপুরে কালাপুরে ইউনিয়নের রাজাপুর গ্রামের মৃত মহিম দেবনাথের ছেলে সুশেন দেবনাথ’র ১লক্ষ ১০ হাজার টাকা, শ্রীমঙ্গল এনাম সাইকেল ষ্টোর’র মালিকের কর্মচারীর কাছ থেকে দোকানের ৫০হাজার টাকা সহ আরোও অনেক টাকা ছিনিয়ে নেয় চক্রটি।
গত কয়েকদিন ধরে শ্রীমঙ্গলে চোরের উপদ্রপ বৃদ্ধি পেয়েছে। বিশেষ করে ব্যাংক গ্রাহক, ব্যবসায়ী, দোকান ব্যবস্থাপক ও বিভিন্ন কোম্পানীর বিক্রয় প্রতিনিধিরা আতঙ্কের মধ্যে আছেন। ঈদুল আজহা উপলক্ষ্যে বিদেশ থেকে ব্যাংকে রেমিটেন্স প্রেরণ করছেন প্রবাসী আত্মীয় স্বজন। গ্রামের সাধারণ মানুষ জন বিশেষ করে মহিলারা যখন টাকা তুলতে আসেন এ সুযোগে প্রতারকচক্রের চোরেরা টার্গেট করে সাধারণ গ্রাহকদের। আবার টাকা বদল বা ডলার বদলের নাম করে এরা হাতিয়ে নেয় টাকা পয়সা। বেশ কিছুদিন ধরে শ্রীমঙ্গল শহরের জনগনের নিকট থেকে এ পর্যন্ত প্রায় চার লক্ষ টাকা হাতিয়ে নিয়েছে কাশেমের এ চক্রটি। শ্রীমঙ্গল ব্যবসায়ী সমিতির শ্রীমঙ্গল ব্যবসায়ী সমিতির সাধারন সম্পাদক হাজী কামাল হোসেন প্রতারক কাশেমকে শ্রীমঙ্গল থানায় সোপর্দ করেন।

এব্যাপারে শ্রীমঙ্গল থানার অফিসার ইনচার্জ কে এম নজরুল ইসলাম বলেন, প্রতারক চক্রের সদস্যের নিকট কাছ থেকে প্রতারণার মাধ্যমে ছিনতাইকৃত টাকা উদ্ধারের এবং পুরো চক্রটিকে ধরার জন্য পুলিশের অভিযান অব্যাহত রয়েছে ।