শনিবার, ২৪ সেপ্টেম্বর ২০২২ খ্রীষ্টাব্দ | ৯ আশ্বিন ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

আদমপুরে জীনিয়াস কম্পিউটার সাইন্স এন্ড টেকনোলজি এক অনন্য প্রতিষ্ঠান



॥ কমলকুঁড়ি প্রতিবেদক ॥
বর্তমান যুগ হচ্ছে “তথ্য-প্রযুক্তি” এর যুগ! জীবনের প্রত্যেকটি স্তরে স্তরে রয়েছে প্রযুক্তির ছোঁয়া। প্রযুক্তি ব্যবহারের ফলে জীবন হয়ে উঠছে আরও সুন্দর ও সহজ।
একুশ শতকের তথ্য প্রযুক্তি বিপ্লব মানব সভ্যতার গতি ও প্রকৃতি দ্রুত বদলে দিচ্ছে তাই দ্রুত বদলে যাচ্ছে মানুষের জীবন মান?  একটি উন্নয়নশীল জাতি হিসেবে দারিদ্র বিমোচন করে জনগণের জীবনমান উন্নত করার অতি গুরুতর চ্যালেঞ্জ মোকাবেলায় কম্পিউটার বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তির সুষ্ঠু ব্যবহার করা প্রয়োজন। দেশের সার্বিক উন্নয়নও সমৃদ্ধি লাভে সর্বক্ষেত্রে  দক্ষতা অর্জন করে সর্বোচ্চ গুণ ও মান সম্পন্ন উৎপাদন নিশ্চিত করার লক্ষ্যে কম্পিউটার বিজ্ঞান ও তথ্য প্রযুক্তির ব্যবহার বিশেষ অবদান রাখছে।  এক্ষেত্রে মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জ উপজেলার আদমপুরে জীনিয়াস কম্পিউটার সাইন্স এন্ড টেকনোলজি এক অনন্য প্রতিষ্ঠান হিসাবে ভূমিকা পালন করছে। বাংলাদেশ কারিগরি শিক্ষা বোর্ডের অনুমোদন প্রাপ্ত এ প্রতিষ্ঠানটি অত্যন্ত দক্ষতা ও মনোরম পরিবেশে তথ্য প্রযুক্তি ও  কম্পিউটার শিক্ষার সেবা প্রদান করে যাচ্ছে। জীনিয়াস কম্পিউটার সাইন্স এন্ড টেকনোলজির পরিচালক দিবাংশু দেবনাথ সিলেটের মদন মোহন কলেজে অধ্যয়নরত থাকাকালীন সময়ে সেখানকার যুব উন্নয়ন অধিদপ্তরের একটি কম্পিউটার প্রশিক্ষণ কেন্দ্র থেকে কম্পিউটার প্রশিক্ষণ নেন।  পরবর্তীতে নিজ এলাকার শিক্ষিত বেকারদের কারিগরি শিক্ষায় শিক্ষিত করে তোলার উদ্দেশ্যে তার নিজ উদ্দোগে নইনারপার বাজারে মাত্র তিনটি কম্পিউটার দিয়ে ২০১২ সালে আদর্শ কম্পিউটার ট্রেনিং সেন্টার নামে যাত্রা শুরু করেন। তিনি এলাকার শিক্ষিত বেকারদের কাছ থেকে স্বল্প অর্থ নিয়ে কম্পিউটার শিক্ষা দিতেন। অর্থনৈতিক অবস্থা ভাল না থাকায় তেমন কোন উন্নতি করতে পারেননি।
পরবর্তীতে মৌলভীবাজার সরকারী টেকনিক্যাল স্কুল এন্ড কলেজের প্রকৌশলী সাইফুর রহমান ও নইনারপার বাজারের  মেহেদী হাসান জুয়েল এর প্রস্তাবে তিনজনের যৌথ উদ্যোগে আদমপুরবাজারে “জীনিয়াস কম্পিউটার সাইন্স এন্ড টেকনোলজি” নামে নতুন করে প্রতিষ্ঠানটি চালু করেন।  অত্যন্ত সুনামের সাথে এলাকার শিক্ষিত বেকারদের কম্পিউটার প্রশিক্ষণ দিয়ে আসছে। জীনিয়াস কম্পিউটার সাইন্স এন্ড টেকনোলজি ২০১৫ সালের ১লা জুলাই বাংলাদেশ কারিগরি শিক্ষা বোর্ডের অনুমোদন লাভ করে। প্রতিষ্ঠান কোড – ৬২০৩৭। অত্র প্রতিষ্ঠান থেকে প্রশিক্ষণ নেয়া শিক্ষার্থীদের সাথে  কথা বলে  জানা যায় এখানকার প্রশিক্ষকরা সবাই খুবই অভিজ্ঞ ও স্বাবলীল মনোরম পরিবেশে প্রশিক্ষণ দিচ্ছেন। সরজমিন দেখা যায়, অত্যন্ত সুন্দর ও গোছালো ল্যাব রুম, ক্লাস রুম। নিরিবিলি পরিবেশে কম্পিউটার শিক্ষা প্রদান শিক্ষার্থীদের জন্য সুনাম বয়ে আনবে আশা করা যায়। তথ্য প্রযুক্তির যুগে কম্পিউটার শিক্ষা অত্যন্ত যুগপোযোগী। সব মিলে জীনিয়াস কম্পিউটার সাইন্স এন্ড টেকনোলজি সুনাম যেমন রয়েছে তেমনি প্রশিক্ষক, পরিচালক অত্যন্ত দক্ষতা নিপুন মনে প্রশিক্ষণ প্রদান করছেন। গ্রামগঞ্জের অজপাড়া গায়ে একটি কম্পিউটার শিক্ষা প্রতিষ্ঠান যেন এক অনন্য প্রতিষ্ঠান।