শনিবার, ২৬ নভেম্বর ২০২২ খ্রীষ্টাব্দ | ১২ অগ্রহায়ণ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

পথের ভিখারিকেও সম্মান করতে হবে- কমলগঞ্জে মতবিনিময়ে জেলা প্রশাসক কামরুল হাসান।



11246479_773118689454062_4096566758213081820_n

শাহীন আহমেদ, কমলগঞ্জ
মৌলভীবাজারের জেলা প্রশাসক মো. কামরুল হাসান বলেছেন, সরকারী কর্মকর্তা হিসেবে পথের ফকিরকেও সম্মান করতে হবে। কেউ যদি অফিসে আসে তাহলে তার কথা শোনে সমাধানের ব্যবস্থা করতে হবে। এক সময় প্রশাসনিক কর্মকর্তারা ব্রিটিশের পরে পাকিস্তানের গোলামি করেছেন। বাংলাদেশ হওয়ায় এখন আমরা দেশের মানুষের খেদমত করি। এটা আমার অনুরোধ নয়, আহবান নয়, জেলা প্রশাসক হিসেবে নির্দেশ দিচ্ছি কেউ অফিসে আসলে তাকে বিমুখ করা যাবে না। এর খেলাপ হলে তা বরদাস্ত করা হবে না। এদেশের প্রতি ইঞ্চি মাটি যত্ম করে ব্যবহার করতে হবে। আয়তনে ছোট্র বাংলাদেশকে সবাই মিলে আদর্শ রাষ্ট্র হিসেবে গড়ে তুলতে হবে। রাস্তার পাশে কাঁঠাল গাছ লাগাতে হবে। এতে ফল ধরলে পথচারী থেকে শুরু করে সবাই খেতে পারবে। কেউ চুরি করলেও সে পুষ্টি পাবে। তাই কিছু করতে হলে উৎপাদনমুখী করবেন। বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা প্রত্যন্ত অঞ্চলের খবর রাখেন। মৌলভীবাজার জেলার প্রধান সমস্যা নদী ভাঙ্গন তা প্রধানমন্ত্রী ভালো করে জানেন। এটা তার বিচক্ষন রাষ্ট্র নায়কের পরিচয়। শত প্রতিকুলতার মাঝেও বছরের প্রথম দিন বিনামূল্যে শিক্ষার্থীদের হাতে বই তুলে দেওয়া সম্ভব হয়েছে। শিক্ষা ক্ষেত্রে দেশ এগিয়ে যাচ্ছে। এখন অনেক দেশ অবাক হয়ে প্রশ্ন করে কিভাবে বাংলাদেশ বিনামূল্যে কোটি কোটি বই বিতরন করে। তিনি ১২ মে মঙ্গলবার বেলা চার টায় কমলগঞ্জ উপজেলা পরিষদ সভা কক্ষে এক মতবিনিময় সভায়্ উপরোক্ত কথাগুলো বলেন।
কমলগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ জাহিদুল ইসলাম মিঞার সভাপতিত্বে মতবিনিময় সভায় প্রধান অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন মৌলভীবাজারের জেলা প্রশাসক মো. কামরুল হাসান। অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন কমলগঞ্জ উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান অধ্যাপক রফিকুর রহমান, ভাইস চেয়ারম্যান পারভীন আক্তার লিলি, মো. সিদ্দেক আলী, কমলগঞ্জ পৌর মেয়র আবু ইব্রাহীম জমসেদ, উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার আব্দুল মুনিম তরফদার, ইউপি চেয়ারম্যান ইফতেখার আহমেদ বদরুল, ফজলুল হক বাদশা, গোলাম কিবরিয়া শফি, পুষ্প কুমার কানু, সুলেমান হোসেন, সাংবাদিক মুজিবুর রহমান রঞ্জু, শাহীন আহমেদ, মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা জাহাঙ্গীর আলম প্রমুখ। সভায় উপজেলার সকল বিভাগীয় কর্মকর্তা, জনপ্রতিনিধি, পুলিশ প্রতিনিধি, রেলওয়ে প্রতিনিধি ও সাংবাদিকবৃন্ধ উপস্থিত ছিলেন। সভায় উন্মুক্তভাবে গাছগাছালি চুরি, অবাধে মাদকের চোরাচালান পাচার, ধলাই নদীর ভাঙ্গন, স্বাস্থ্য সেবা, শিক্ষা উন্নয়নসহ সার্বিক বিষয়ে আলোচনা হয়। আলোচনার ফাঁকে বিভাগীয় কর্মকর্তারা নানা প্রশ্নের জবাব দেন। সভা শেষে প্রতি মাসে এ ধরনের মতবিনিময় সভার আয়োজন করতে প্রতিশ্র“তি দেন জেলা প্রশাসক