মঙ্গলবার, ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২২ খ্রীষ্টাব্দ | ১২ আশ্বিন ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

মানুষ পুড়িয়ে মারার রাজনীতি প্রতিহত করতে হবে ——-সমাজকল্যাণ মন্ত্রী



॥ কমলকুঁড়ি রিপোর্ট ॥
সমাজকল্যাণ মন্ত্রী সৈয়দ মহসীন আলী এমপি বলেছেন, রাজনীতি ও আন্দোলনের নামে বেগম খালেদা  জিয়ার নেতৃত্বে ২০ দলীয় জোট সারা দেশে যানবাহনে পেট্রোল বোমা নিক্ষেপ করে মানুষ পুড়িয়ে মারছে। এ হামলা থেকে শিশু ও নারীরাও রক্ষা পাচ্ছেন না। সারা দেশে ত্রাসের রাজনীতি শুরু করেছেন। ১৫ লাখ এসএসসি পরীক্ষার্থী আজ জিম্মি হয়ে পড়েছে। এখন সময় এসেছে জনগণকে সাথে নিয়ে ঐক্যবদ্ধ হয়ে মানুষ পুড়িয়ে মারার রাজনীতি প্রতিহত করতে হবে। গত শনিবার (৭ ফেব্রুয়ারী) রাত সোয়া ১০টায় মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জ উপজেলার শমশেরনগর রেলওয়ে স্টেশনে ঢাকা-সিলেট পথে চলাচলকারী আন্তঃনগর কালনি এক্সপ্রেসের যাত্রা বিরতীর আনুষ্ঠানিক উদ্বোধনীকালে প্রধান অতিথির বক্তব্যে মন্ত্রী এ কথাগুলো বলেন।
শমশেরনগর উন্নয়ন পরিষদের সভাপতি সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান আব্দুল গফুরের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন সমাজকল্যাণ মন্ত্রী সৈয়দ মহসীন আলী। বিশেষ অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন সাবেক এআইজি ও জনতা ব্যাংকের পরিচালক সৈয়দ বজলুল করিম, কমলগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ জাহিদুল ইসলাম মিঞা, বিএনপি নেতা ক্যাপ্টেন (অব:) সাজ্জাদুর রহমান ও বাংলাদেশ রেলপথের সহকারী বাণিজ্যিক কর্মকর্তা (এক) মো: সাঈদ আহমদ।
শমশেরনগরবাসীর দীর্ঘ দিনের দাবী বাস্তবায়নে সমাজকল্যাণ মন্ত্রী সৈয়দ মহসীন আলীর প্রচেষ্টায় রেলপথ মন্ত্রণালয় ৭ ফেব্রুয়ারী থেকে শমশেরনগর স্টেশনে ঢাকা-সিলেট পথে চলাচলকারী আন্তঃনগর কালনি এক্সপ্রেস ট্রেনের যাত্রা বিরতী শুরু হয়। শনিবার সকাল ৮টা ১০ মিনিটের সময় ঢাকা অভিমুখী আন্তঃনগর কালনি এক্সপ্রেস ট্রেন প্রথম শমসেরনগর স্টেশনে যাত্রা বিরতি করে। এসময় শমশেরনগর উন্নয়ন পরিষদের পক্ষ থেকে এ স্টেশন থেকে ট্রেনে আরোহনকারী সকল যাত্রীদের মিষ্টিমুখ করে ফুল দিয়ে বরণ করা হয়। সাথে সাথে একইভাবে বরণ করে শুভেচ্ছা বিনিময় করা হয় কালনি ট্রেনের দুই চালক, পরিচালক ও সকল যাত্রী বগির অ্যাটেনডেন্টদের।  ঢাকা থেকে ছেড়ে আসা আন্তঃনগর কালনি এক্সপ্রেস ট্রেন শনিবার রাত সোয়া দশটায় শমশেরনগর স্টেশনে এসে পৌছলে সমাজকল্যাণ মন্ত্রী এ ট্রেনের যাত্রী ও রেল কর্মচারীদের শুভেচ্ছা জানান।