মঙ্গলবার, ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২২ খ্রীষ্টাব্দ | ১২ আশ্বিন ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

চা শ্রমিকদের বসতঘর ও চিকিৎসা সেবার আরও মান উন্নয়ন করা হবে ——–কমলগঞ্জে সমাজকল্যাণ মন্ত্রী



স্টাফ রিপোর্টার ॥
সমাজকল্যাণ মন্ত্রী বীর মুক্তিযোদ্ধা সৈয়দ মহসীন আলী এমপি বলেছেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা জানেন ও বিশ্বাস করেন চা শ্রমিকরা শুরু থেকেই নৌকায় ভোট দিচ্ছে। তারা জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ও আওয়ামীলীগকে ভালবাসে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সরকার চা শ্রমিকদের সার্বিক উন্নয়নে ৫ কোটি টাকা বরাদ্দ করেছেন। চা শ্রমিকরা অনেক কষ্ট করে চা শিল্পকে বাঁচিয়ে রাখলেও তাদের তেমন উন্নয়ন হচ্ছে না। চা শ্রমিকদের সুখ দু:খ আমি ভাল বুঝি। বর্তমান সরকারের আমলেই দেশের সবগুলো চা বাগানে শ্রমিকদের বসত ঘর ও চিকিৎসা সেবার আরও মান উন্নয়ন করা হবে। পর্যায়ক্রমে সবগুলো চা বাগানে বিশুদ্ধ পানীয় জল সরবরাহ করা হবে। দেওয়া হবে উন্নত স্যানিটেশন সেবা। শনিবার (১৩ জুন) বিকাল চার ঘটিকায় কুরমা চা বাগান সাচ ঘরে সমাজকল্যাণ মন্ত্রণালয়ের অধীনে মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জ উপজেলার সীমান্তবর্তী ইসলামপুর ইউনিয়নের কুরামা চা বাগানে চা শ্রমিকদের মাঝে খাদ্য সহায়তা ও নগদ অর্থ প্রদান অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ কথাগুলো বলেন ।
ইসলামপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান সুলেমান মিয়ার সভাপতিত্বে ও ছাত্রলীগ নেতা শাহীন আহমদের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন সমাজকল্যাণ মন্ত্রী বীর মুক্তিযোদ্ধা সৈয়দ মহসীন আলী এমপি। বিশেষ অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন আওয়ামীলীগের কেন্দ্রীয় নির্বাচন পরিচালনা কমিটির সদস্য, সাবেক এ আইজি ও জনতা ব্যাংকের পরিচালক সৈয়দ বজলুল করিম, কমলগঞ্জ উপজেলা চেয়ারম্যান অধ্যাপক রফিকুর রহমান, কমলগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ জাহিদুল ইসলাম মিঞা, জেলা আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক সাইফুর রহমান বাবুল, উপজেলা প্যানেল চেয়ারম্যান পারভীন আক্তার লিলি, জেলা সমাজসেবা অধিদপ্তর এর উপ-পরিচালক অরবিন্দ সেনগুপ্ত, উপজেলা সমাজসেবা অফিসার সরজিত কুমার পাল ।
অনুষ্ঠানে ২৮ জন চা শ্রমিককে নগদ ৫ হাজার টাকা করে অনুদান, কুরমা চা বাগান মসজিদে ২ হাজার টাকার অনুদান ও ১৫ জন চা শ্রমিককে খাদ্য সহায়তা হিসাবে ১৫ কেজি চাল,৩ কেজি ডাল, ৫ কেজি আটা, ৫ কেচি আলু, ২ লি: সোয়াবিন তেল ও ২ পিছ সাবান করে প্রদান করা হয়।