শনিবার, ১ অক্টোবর ২০২২ খ্রীষ্টাব্দ | ১৬ আশ্বিন ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

১১ জানুয়ারী মুন্সীবাজার ব্যবসায়ী সমিতির নির্বাচন ॥ প্রার্থীদের প্রচারণা জমজমাট ॥ পোষ্টারে পোষ্টারে ছেয়ে গেছে গোটা এলাকা



॥ কমলকুঁড়ি রিপোর্ট ॥

আর মাত্র হাতে গোনা কয়েকদিন বাকি। আগামী ১১ জানুয়ারী কমলগঞ্জ উপজেলার ঐতিহ্যবাহী মুন্সীবাজার ব্যবসায়ী সমিতির নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। নির্বাচনকে সামনে রেখে প্রার্থীরা দিন রাত প্রচারণা চালিয়ে যাচ্ছেন। ইতিমধ্যে প্রার্থীদের পোষ্টারে পোষ্টারে ছেয়ে গেছে গোটা বাজার। বিভিন্ন স্থানে দেয়া হয়েছে লম্বা লম্বা বেষ্টুন। ভোটারদের আকর্ষণ করার জন্য রঙিন বেষ্টুন ও বোর্ড টাঙিয়ে রাখা হয়েছে। সবকিছু মিলে উৎসব আমেজ মুন্সীবাজারে দেখা দিয়েছে। গত ২৮ ডিসেম্বর রবিবার দুপুরে মুন্সীবাজার ব্যবসায়ী সমিতির আহবায়ক কমিটি তফসিল ঘোষণা করেন। এ উপলক্ষে ব্যবসায়ীদের নিয়ে সাধারণ সভা অনুষ্ঠিত হয়। সমিতির আহবায়ক মো: লোকমান হোসেন চৌধুরীর সভাপতিত্বে ও সদস্য মিজানুর রহমান জমসেদ এর পরিচালনায় অনুষ্ঠানে অতিথি হিসাবে উপস্থি ছিলেন রহিমপুর ইউপি চেয়ারম্যান ইফতেখার আহমেদ বদরুল, মুন্সীবাজার ইউপি চেয়ারম্যান আব্দুল মোতালিব তরফদার। বক্তব্য রাখেন জুনেল আহমেদ তরফদার, শাকির আহমেদ তরফদার সাজিম, আফজল হোসেন চৌধুরী, শাহরিয়ার চৌধুরী লিটন, শাহীন আহমদ, নাজমুল হোসেন, হোসেন জুবায়ের, নারায়ন পাল, মতিলাল পাল প্রমুখ। উপস্থিত ছিলেন বিভিন্ন পদের প্রার্থী, ব্যবসায়ীবৃন্দ, সুধীবৃন্দ। গত ২৯ ডিসেম্বর ছিল মনোনয়ন ফরম বিক্রয়, ৩০ ডিসেম্বর মনোনয়ন জমা, ৩১ ডিসেম্বর জমাকৃত মনোনয়ন যাচাই বাচাই। ১ জানুয়ারী প্রার্থীতা প্রত্যাহার ও প্রতীক বরাদ্ধ। ব্যবসায়ী সমিতির নির্বাচনে ৮টি পদে ১১ জন প্রার্থী নির্বাচিত হবেন। তার মধ্যে সদস্য পদে ৪জন নির্বাচিত হবেন। নির্বাচনে সভাপতি, সহসভাপতি, সাধারণ সম্পাদক, সহসাধারণ সম্পাদক, কোষাধ্যক্ষ, প্রচার সম্পাদক, সাংস্কৃতিক সম্পাদক ও সদস্য পদ রয়েছে। আসন্ন মুন্সীবাজার ব্যবসায়ী সমিতির নির্বাচনে সভাপতি পদে প্রতিদ্বন্ধিতা করছেন জুনেল আহমেদ তরফদার (আনারস) ও শাকির আহমেদ তরফদার সাজিম বর্তমান সভাপতি (চাকা), সহসভাপতি পদে আফজল হোসেন চৌধুরী (চশমা) ও মো: মর্তুজ মিয়া (গরুর গাড়ী), সাধারণ সম্পাদক পদে সফিকুল ইসলাম (মোরগ), শাহরিয়ার চৌধুরী লিটন (হরিণ), রাসেল আহমদ চৌধুরী (কুলা) ও আব্দুল আলীম (টিউবওয়েল), সহ সাধারণ সম্পাদক পদে ইব্রাহীম আহমদ সুমন (মাছ) ও মো: মখলিছ মিয়া (হাতি), কোষাধ্যক্ষ পদে রাখাল পাল (কাপ পিরিচ) ও মো: সাদেক আহমদ (মোটর সাইকেল), প্রচার সম্পাদক পদে কৃষ্ণ পদ পাল (সিলিং ফ্যান) ও মো: এখলাচ মিয়া (ঘূড়ি), সাংস্কৃতিক সম্পাদক পদে জুনেদ আহমদ (রিক্সা) ও কৃষ্ণ কুমার রায় (সেলাই মেশিন), সদস্য পদে মাওলানা মাশহুদ আহমদ (গোলাপ ফুল), আক্তার মিয়া (ফুটবল), আশিক মিয়া (মই), শিমূল আহমদ চৌধুরী (মাইক), আনন্দ মজুমদার (ক্রিকেট ব্যাট), মিজানুর রহমান (আম), মিনহাজ খাঁন (হাত পাখা) ও মো: ছয়ফুল্লাহ (বাঘ)। সাধারণ সম্পাদক ও সদস্য পদে একাধিক প্রার্থী থাকায় ভোটাররা কাকে ভোট দিবেন তা নিয়ে সাময়িক ভাবে হিমশিম খাচ্ছেন। অন্যান্য পদে মাত্র ২জন করে প্রার্থী প্রতিদ্বন্ধিতা করায় বেশির ভাগ ভোটাররা তাদের মনের মতো প্রার্থীকে নির্বাচিত করে ফেলেছেন বলে জানা যায়। সকল প্রার্থীদের মধ্যে সভাপতি পদে প্রার্থীদের মধ্যে লড়াই হবে। ২জন প্রার্থীরাই বিজয়ী হওয়ার শতভাগ আশবাদ প্রকাশ করছেন। হিসাব নিকাশ করে বুঝা যাবে আগামী ১১ জানুয়ারী নির্বাচনে কে বিজয়ী হবে এ অপেক্ষায় রয়েছেন ভোটাররা ও সুধীজন। নির্বাচন পরিচালনা কমিটি (আহবায়ক) সূত্রে জানা যায়, সুষ্ঠু, সুন্দর, স্বচ্ছতা ও গ্রহণযোগ্য মূলক নির্বাচন করার লক্ষে ইতিমধ্যে সকল প্রস্তুতি সম্পন্ন করছেন। নির্বাচনে মোটা ভোটার ৮৯০ জন। বিগত নির্বাচনে ৭১৩ জন ভোটার ছিলেন।